সর্বশেষ
বৃহঃস্পতিবার ১০ই জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ | ২৪ মে ২০১৮

সবকিছু ঠিক ছিল বলে বড় হয়েও কথা বলেননি আইনস্টাইন (পর্ব ১)

আইনস্টাইন সম্পর্কে মজার তথ্য

মঙ্গলবার, নভেম্বর ২১, ২০১৭

1555437480_1511247241.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
আলবার্ট আইনস্টাইন, একজন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী পদার্থবিজ্ঞানী। ১৮৭৯ সালের ১৪ মার্চ জার্মানিতে জন্মগ্রহণ করেন তিনি। তিনি রাতা-রাতি আপেক্ষিকতার তত্ত্ব এবং বিশেষত ভর-শক্তি সমতুল্যতার সূত্র আবিষ্কারের জন্য বিখ্যাত হয়েছিলেন।

আইনস্টাইন ১৯২১ সালে পদার্থবিজ্ঞানে নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। তার পুরস্কার লাভের কারণ হিসেবে উল্লেখ করা হয়, তাত্ত্বিক পদার্থবিজ্ঞানে বিশেষ অবদান এবং বিশেষত আলোক-তড়িৎ ক্রিয়া সম্পর্কিত গবেষণা।

তার সম্পর্কে এসব জানার পর মনে হয়, তিনি ছিলেন গম্ভীর প্রকৃতির একজন মানুষ। তবে মোটেও না। তিনি ছিলেন খুবই রসিক প্রকৃতির। আইনস্টাইন সম্পর্কে অনেক মজার তথ্য আছে যা আমাদের অনেকেরই জানা নেই।

১৯৯৯ সালে টাইম সাময়িকী আইনস্টাইনকে 'শতাব্দীর সেরা ব্যক্তি' হিসেবে ঘোষণা করে। শতাব্দীর সেই সেরা ব্যক্তিটি জন্মের পর পর বাবা মা এর দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন। কারণ হিসেবে জানা যায়, একটি শিশু স্বাভাবিক যে বয়সে কথা বলে, আইনস্টাইনের সেই বয়স পার হয়ে যাওয়ার পরও কথা বলছিলেন না। বাবা মা এর দুশ্চিন্তা হতে লাগল, 'ছেলে আবার বোবা হবে না তো!' অনেক দিন পরের ঘটনা, রাতে খাবার টেবিলে সবাই আছেন। আছেন আইনস্টাইন নিজেও। হঠাৎ তিনি বলে উঠলেন, 'এই সুপটা খুবই গরম।' তার বাবা মা এর খুশি দেখে কে! ছেলে তাদের কথা বলেছে। পরে তার কাছে জানতে চাওয়া হয়েছিল, এত দিন তিনি কথা বলেন নি কেন? আইনস্টাইনের সহজ সরল জবাব, 'এর আগে সবকিছু ঠিকঠাক ছিল।'

ছোটবেলায় দুইটি জিনিস তার মনে অপার বিস্ময়ের জন্ম দিয়েছিল। প্রথমত, পাঁচ বছর বয়সে দিক নির্ণয়কারী একটি কম্পাস হাতে পান। এই কম্পাসের ব্যবহার বিস্মিত করেছিল আইনস্টাইনকে। অদৃশ্য শক্তির কারণে কিভাবে কম্পাসের কাঁটা দিক পরিবর্তন করছে? এরপর থেকে অদৃশ্য শক্তির প্রতি তার বিশেষ আকর্ষণ সৃষ্টি হয়েছিল।

দ্বিতীয়ত ১২ বছর বয়সে তিনি জ্যামিতির একটি বইয়ের সাথে পরিচিত হন। এই বইটি পড়ে এত মজা পেয়েছিলেন যে আজীবন বইটিকে "পবিত্র ছোট্ট জ্যামিতির বই" বলে সম্বোধন করেছেন। আসলে ওই বইটি ছিল ইউক্লিডের এলিমেন্ট্‌স।

ঢাকা, মঙ্গলবার, নভেম্বর ২১, ২০১৭ (বিডিলাইভ২৪) // জে এইচ এই লেখাটি ২৬৫ বার পড়া হয়েছে