সর্বশেষ
শনিবার ৯ই আষাঢ় ১৪২৫ | ২৩ জুন ২০১৮

স্মার্টফোন পানিতে পড়ে গেলে যা করণীয়

রবিবার, ফেব্রুয়ারী ১৮, ২০১৮

Capture.JPG
বিডিলাইভ ডেস্ক :

স্মার্টফোন যতই উন্নত হোক না কেন, কিছু সীমাবদ্ধতা এতে রয়েই যাচ্ছে। এর মধ্যে ফোনে পানি ঢুকে নষ্ট হয়ে যাওয়ার সমস্যা অন্যতম। বেশ কিছু ব্র্যান্ড তাদের দামি ফোনগুলোতে পানিরোধী ফিচার যুক্ত করলেও সাধারণ স্মার্টফোনগুলো এই সুবিধার বাইরে রয়েছে। মানুষের কর্মব্যস্ততা বেড়ে গেছে। এক সেকেন্ড সময়ও মানুষের কাছে এখন অনেক গুরুত্বপূর্ণ। আর এই গুরুত্বপূর্ণ কাজের সঙ্গী মোবাইল।

মোবাইল ফোন ছাড়া এক মিনিটও কাটানো অসম্ভব অধিকাংশ মানুষের কাছে। সবার প্রিয় জিনিস এই স্মার্টফোন কিন্তু ভিজে গেলেই বিপত্তি! এ অবস্থায় কি করবেন বা কি করবেন না ভেবে না পেয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েন। তবে স্মার্টফোন পানিতে পড়ে গেলেও ভালো থাকবে।

১. পানিতে স্মার্টফোন পড়ে গেলে, ফোনটি তুলেই কোনো কিছু পরীক্ষা করার চেষ্টা না করে আগে সুইচ অফ করুন। কারণ পানিতে পড়লেও ফোন বন্ধ হয় না। ফলে ভেতরে শর্ট-সার্কিট হয়ে যায়। যাবতীয় ডেটা নষ্ট হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। পানি থেকে তুলেই স্মার্টফোনের সুইচ অফ করে দিলে আর ডেটা নষ্ট হয়ে যাওয়ার ভয় থাকে না।

২. এরপর চটজলদি প্রথমে ব্যাটারি, সিম কার্ড এবং মেমরিকার্ড খুলে ফেলুন। ব্যাটারিটি শুকনো তোয়ালে দিয়ে ভালো করে মুছুন। সিম কার্ড ও গোটা মোবাইলটিও সযত্নে মুছে নিন।

৩. পানি মোছার পর ফোনটিকে কিছুক্ষণ ঝাঁকিয়ে নিন। যাতে হেডফোন জ্যাক, চার্জিং পোর্টে একটুও পানি জমে না থাকে। শুকনো কাপড়ে মুছে একটি টিস্যু পেপার দিয়ে আরেকবার মুছে নিন।

৪. এরপর একটি বাতাসমুক্ত পাত্রে শুকনো চাল নিন। সেই চালের ভিতর রেখে প্রায় দশ-বারো ঘণ্টা রেখে দিন মোবাইল ও ব্যাটারিটিকে। অথবা রোদেও ভালো করে শুকিয়ে নিতে পারেন। তা যদি সম্ভব না হয় একশো পাওয়ারের একটি বাল্ব জ্বালিয়ে মোবাইল ও ব্যাটারিকে হিট দেন ভালো করে। সিলিকা জেল থাকলেও ব্যবহার করতে পারেন।

৫. এই প্রক্রিয়ায় যে পরিমাণ পানি থাকুক না কেন তা শুকিয়ে যায়। চালের মধ্যে বা সিলিকা জেলে ২৪ থেকে ৪৮ ঘণ্টা রাখতে হবে। স্মার্টফোন পানিতে পড়লে এই পাঁচটি উপায়ে সহজেই আপনার ফোন পুনরায় কাজ করা শুরু করে দেবে।

মোবাইল ফোন ভেজা অবস্থায় কখনোই অন করতে যাবেন না। এরপরও যদি কোনো কাজ না হয় তাহলে দ্রুত মোবাইল ইঞ্জিনিয়ারের শরণাপন্ন হোন।


ঢাকা, রবিবার, ফেব্রুয়ারী ১৮, ২০১৮ (বিডিলাইভ২৪) // জে এস এই লেখাটি ৪৯৬ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন