সর্বশেষ
শুক্রবার ৬ই আশ্বিন ১৪২৫ | ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮

‘কোহলিকে সাপোর্ট করায় আমার চাকরি গেছে’

বৃহস্পতিবার, মার্চ ৮, ২০১৮

image-25458-1520512705.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

বিরাট কোহলিকে সাপোর্ট করায় চাকরি হারাতে হয়েছে ভারতের সাবেক অধিনায়ক দিলীপ বেঙ্গসরকারকে। ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের (বিসিসিআই) প্রধান নির্বাচকের পদ হারানোর পেছনে এটাই মূল কারণ বলছেন সাবেক এই ক্রিকেটার। ২০০৬ সালে বিশ্বের ধনী ক্রিকেট বোর্ডের নির্বাচকের চেয়ারম্যান পদে আসীন হন দিলীপ। ওই সময় বিসিসিআইয়ের প্রধান ছিলেন কিরন মোরে।

২০০৮ সালে শ্রীলংকার বিপক্ষে ওয়ানডে দলে (তৎকালীন অনূর্ধ্ব-১৯ দলের বিশ্বকাপ জয়ী দলের অধিনায়ক) বিরাট কোহলিকে জাতীয় দলে নিতে চেয়েছিলেন বেঙ্গসরকার। কিন্তু এতে দ্বিমত পোষণ করেন তৎকালীন বিসিসিআইয়ের কোষাধ্যক্ষ শ্রীণিবাসন। তিনি নিজের আইপিএল দলের খেলোয়াড় বদ্রিনাথকে জাতীয় দলে সুযোগ দিতে চেয়েছিলেন। এই মতবিরোধের কারণেই ২০০৮ সালে ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রধান নির্বাচকের পদ থেকে সরে যেতে হয় তাকে।

মুম্বাইয়ের একটি অনুষ্ঠানে এসে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তরে দিতে গিয়ে সাবেক এই অধিনায়ক জানান, ‘আমার মনে হয়েছিল বিরাট কোহলিকে জাতীয় দলে নেয়ার ওটাই সেরা সময় ছিল। চারজন নির্বাচক আমার সঙ্গে একমতও ছিলেন। কিন্তু আমাদের সেই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছেন তৎকালীন জাতীয় দলের অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি এবং কোচ গ্যারি কার্স্টেন। আমি ওদের বলেছিলাম, বিরাটের খেলা আমি দেখেছি ও জাতীয় দলে খেলার যোগ্যতা রাখে। ধোনি এবং শ্রীণিবাসন নিজেদের আইপিএলের দল চেন্নাই সুপার কিংসের খেলোয়াড় বদ্রিনাথকে দলে নিয়ে আসতে আগ্রহী ছিলেন।’

তিনি আরও যোগ করে বলেন, ‘বদ্রিনাথ জাতীয় দলে সুযোগ না পাওয়ায় শ্রীণিবাসন আমাকে ডেকে জিজ্ঞেস করেন এই দলে বদ্রির জায়গা হলো না। জানিয়েছিলাম অস্ট্রেলিয়ায় এমার্জি প্লেয়ারদের ট্যুরে রিরাটের খেলা আমি দেখেছি ও সত্যিই অসাধারণ খেলে। সেই জন্যই কোহলিকে দলে নেয়া হয়েছে। তখম আমাকে বলা হয়েছে বদ্রিনাথ তামিলনাড়ু দলে ৮০০ রান করেছে। ওর এখন ২৯ বছর বয়স। কখন সুযোগ পাবে বদ্রি। এক্ষেত্রে আমার জবাব ছিল ও নিশ্চয় সুযোগ পাবে কিন্তু কখন পাবে সেটা এখনই বলতে পারছি না। এরপর দিনই শ্রীকান্তকে নিজের দলে নেন শ্রীণিবাসন। পরে শ্রীকান্তকে আমার জায়গায় নিয়ে আসা হয়। বিরাটকে দলে নেয়ায় চাকরি যায় আমার।’ যুগান্তর


ঢাকা, বৃহস্পতিবার, মার্চ ৮, ২০১৮ (বিডিলাইভ২৪) // পি ডি এই লেখাটি ১০৪৮ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন