সর্বশেষ
বৃহঃস্পতিবার ১০ই জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ | ২৪ মে ২০১৮

চুয়াডাঙ্গায় গম ক্ষেতে ব্লাস্ট রোগের প্রকোপ

মঙ্গলবার, মার্চ ১৩, ২০১৮

10_0.jpg
চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি :

চুয়াডাঙ্গায় গম ক্ষেতে ব্লাস্ট রোগের প্রকোপ দেখা দিয়েছে। এতে ক্ষতির মুখে পড়েছে প্রায় ১০ হেক্টর জমি।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর জানায়, আবহাওয়ার তারতম্যের কারণে নেক ব্লাস্ট ও হেড ব্লাস্ট রোগে আক্রান্ত হয়ে গমের ফসল নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। ছত্রাক জনিত নেক ব্লাস্ট রোগে গমের কাণ্ড কালো আকার ধারণ করে এবং ফল পড়ে যায়।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, চুয়াডাঙ্গা জেলার ৪টি উপজেলায় ৬৭০ হেক্টর জমিতে গমের চাষ হচ্ছে। চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলায় ২৯ হেক্টর, আলমডাঙ্গা উপজেলায় ৩৮৯ হেক্টর, দামুড়হুদা উপজেলায় ২১২ হেক্টর ও জীবননগর উপজেলায় ৪০ হেক্টর জমিতে গম চাষ হচ্ছে।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গিয়েছে, গত দুই বছর গমে ব্লাস্ট রোগ দেখা দেওয়ায় কৃষকদের গম চাষে নিরুৎসাহিত হচ্ছে। এ ব্যাপারে চাষিদের সচেতনা গড়তে উঠান বৈঠক, লিফলেট বিলিসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করছে কৃষি বিভাগ। কৃষকদের মাঝে গম বীজ বিক্রি বন্ধ রাখতে ডিলার ও ব্যবসায়ীদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

গত দুই বছরে জেলায় গম চাষ কয়েক গুণ হ্রাস পেয়েছে। কৃষকরা মাঠে যে গম চাষ করছে তা নিজেদের উদ্যোগে।

কৃষকরা বলছেন, গম চাষ করছি বাড়ির খাবারের জন্য। কারণ দেশি গমের আটায় তৈরি খাবার ভাল হয়। গমের শীষ শুকিয় যাওয়ায় গম চিটে হচ্ছে। ব্লাস্ট রোগে আক্রান্ত হওয়ায় এমনটি হচ্ছে।


ঢাকা, মঙ্গলবার, মার্চ ১৩, ২০১৮ (বিডিলাইভ২৪) // এস আর এই লেখাটি ১৬৭ বার পড়া হয়েছে