সর্বশেষ
সোমবার ১২ই ফাল্গুন ১৪২৬ | ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০

ঋণ পরিশোধ করতে উবার চালাচ্ছেন শোয়েব

বুধবার, জানুয়ারী ১৫, ২০২০

11-2-65-620x330.jpg
বিডিলাইভ রিপোর্ট :

বাংলাদেশের ক্রিকেটের সমর্থনে স্টেডিয়ামে নিরিলসভাবে গলা ফাটিয়ে সমর্থন জোগান যারা, তাদের একজন শোয়েব আলী বুখারি। টাইগার শোয়েব নামে পরিচিত এই পাঁড় ক্রিকেট ভক্ত এবার বিপিএলে নেই গ্যালারিতে। বিপিএলের বিগত সবগুলো আসরে ক্রিকেট অঙ্গনে ব্যস্ত সময় পার করছিলেন, তবে এবার তার হাতে গাড়ির স্টিয়ারিং।

ঋণ করে শ্রীলঙ্কা ও ভারত সফরে গিয়েছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের এই আইকনিক ফ্যান। সেই ঋণের টাকা পরিশোধ করতে উবার চালাচ্ছেন তিনি। বিডিক্রিকটাইম সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, মোটরগাড়ি ঠিক করার একটি ওয়ার্কশপ ছিল তার। খেলা দেখার পাগলামিতে সেটি বন্ধ করতে হয়েছে। বিশ্বকাপ, শ্রীলঙ্কা আর ভারত সফরের পর মাথায় ঋণের বোঝা। বাধ্য হয়ে শোয়েব এখন উবার চালকের ভূমিকায়। খেলা দেখার উন্মাদনায় অনেক টাকা ঋণ করেছেন। এবার তাই বিপিএলের মত বড় টুর্নামেন্ট ফেলে অর্থের পেছনে ছুটতে হচ্ছে।

প্রতিদিন ৫-৬ ঘণ্টার ঘুমের সময়টুকু বাদে বাকি সময়ের প্রায় পুরোটাই গাড়ি চালান তিনি। বিশ্বকাপের সময় স্পন্সর হওয়া প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে স্পন্সরশিপের টাকাটাও পাননি, পাওয়ার আশাও ছেড়ে দিয়েছেন। বাস্তবতা মেনে টাইগার শোয়েব এখন উবারের ট্রিপে মশগুল। গত বিপিএলেও নিজে গ্যালারিতে ছিলেন, আর এবার তিনি অন্য সমর্থকদের ট্রিপে করে নামিয়ে আসেন মিরপুর স্টেডিয়ামের সামনে।

শোয়েবের অবশ্য আক্ষেপ নেই তিনি জানান, ‘গাড়ি তো কেউ শখ করে চালায় না। পেটের জন্য চালায়। সব রাস্তা বন্ধ হয়ে গেলে আসলে আল্লাহ একটা রাস্তা খুলে দেন। খেলা দেখতে গেলে ওয়ার্কশপের কাস্টমাররা ফিরে যেত, পরে আর আসতো না। খেলা দেখতে গিয়ে আজকে ওয়ার্কশপও নেই, অবস্থাও অতটা ভালো নেই।’

তিনি আরো বলেন, ‘অনেক টাকার ঋণী হয়েছি। স্পন্সর পাওয়া যায় না। বিশ্বকাপ দেখতে ইংল্যান্ড যাওয়ার সময় একটা প্রতিষ্ঠান স্পন্সর হল, কিন্তু সেই টাকা এখনো পাইনি। প্রতি সপ্তাহে ওদের কাছে যাই। মিডিয়ায় বলতে গেলে হয়ত যা পাওয়ার কথা সেটাও পাব না, বা তারা রাগ করবে।’


ঢাকা, বুধবার, জানুয়ারী ১৫, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // এ এম এই লেখাটি ১৯১৪ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন