সর্বশেষ
সোমবার ১২ই ফাল্গুন ১৪২৬ | ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০

অনেকেই জানেন না কানে ব্যথার আসল কারণ

মঙ্গলবার, জানুয়ারী ২৮, ২০২০

1489201212.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

কানের ডাক্তারদের কাছে আসা রোগীদের একটা বিশাল অংশ আসেন কানে ব্যথার সমস্যার জন্য। কানের ব্যথা ব্যাপারটাকে যতটা সামান্য মনে হয়, বাস্তবে তা ততটা সামান্য নয়। অনেক সময় রোগী বা রোগীর স্বজনদের দেওয়া তথ্য অপূর্ণ হওয়ায় বা পারিপার্শ্বিকতার কারণে চিকিৎসকের জন্য কানে ব্যথার আসল কারণ নির্ণয় করা কিছুটা কঠিন হয়ে দাঁড়ায়।

কানে ব্যথা সাধারণত কানের সমস্যার কারণে হতে পারে বলে আমাদের মনে হলেও, বাস্তবে কান ছাড়াও অন্যান্য অনেক কারণে কানে ব্যথা হতে পারে। সে ক্ষেত্রে কান পরীক্ষা করে দেখা যায় আক্রান্ত ব্যক্তির কান সম্পূর্ণ স্বাভাবিক।

সাধারণত আচমকা কানে ব্যথা শুরু হয় কানের ভেতরকার রাস্তায়—যাকে এক্সটার্নাল অডিটরি ক্যানাল বলা হয়। সেখানে যদি ব্রণের মতো হয় (ফারাংকুলোসিস) তাহলে প্রচণ্ড ব্যথা হয়। বিশেষ করে খাবার চিবানো বা হাই তোলার সময় ব্যথার তীব্রতা বাড়ে।

তীব্র ব্যথা হওয়ার আরেকটি কারণ হলো মধ্যকর্ণের সংক্রমণ। অনেক সময় রোগী বলতে পারেন যে কানে প্রচণ্ড ব্যথা এবং ব্যথাটা দপ দপ করছে। খাবার বা পানি গেলার সময় ব্যথার তীব্রতা বাড়ে। এটা অনেক ক্ষেত্রে নিজ থেকে সেরে যায়। সে ক্ষেত্রে রোগী জানান যে তীব্র ব্যথা থাোকার পর হঠাৎ ব্যথা কমেছে কিন্তু কান থেকে পানি পড়ছে।

এ সমস্যায় ক্ষেত্র বিশেষে চিকিৎসকের শরণাপন্ন হতে হয়। মধ্য কর্ণের সংক্রমণের কারণেও কানে ব্যথা হতে পারে। এছাড়া কানে আঘাত, চড়, আচমকা পুকুরে ঝাঁপ, হঠাৎ প্রচণ্ড শব্দ, যেমন—বাজি, পটকার আওয়াজ, গাড়ির হর্ন ইত্যাদির কারণেও কানে প্রচণ্ড ব্যথা হতে পারে।

দীর্ঘদিনের সংক্রমণ থেকেও কানে ব্যথা হতে পারে। তবে সেটার শুরু হয় ধীরে ধীরে। এ ব্যথা প্রচণ্ড হতে কিছুটা সময় নেয়। মধ্যকর্ণের ক্যানসারের ব্যথা শুরু হতেও সময় নেয়। মধ্যকর্ণের সংক্রমণের ব্যথা, কানের চামড়ার একজিমার সংক্রমণ, কানের জমে থাকা খৈল ইত্যাদির কারণে হওয়া ব্যথা খুব একটা তীব্র হয় না। তবে এগুলো থাকা অবস্থায় কানে পানি ঢুকলে তারপর ব্যথার তীব্রতা বাড়ে।


ঢাকা, মঙ্গলবার, জানুয়ারী ২৮, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // এ এম এই লেখাটি ৪২৯ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন