সর্বশেষ
বুধবার ২০শে জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ | ০৩ জুন ২০২০

গ্রিন ইউনিভার্সিটিতে সাংবাদিকতা বিভাগের নবীন বরণ

সোমবার, ফেব্রুয়ারী ১৭, ২০২০

gr_0.jpg
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি :

বর্ণাঢ্য আয়োজনে গ্রিন ইউনিভার্সিটির ‘সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম যোগাযোগ’ বিভাগের স্প্রিং ব্যাচের নবীন বরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার (১৭ই ফেব্রুয়ারী) বিশ্ববিদ্যালয়ের শেওড়াপাড়াস্থ সিটি ক্যাম্পাসের সেমিনার হলে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

বিভাগীয় চেয়ারপার্সন ড. অলিউর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. গোলাম সামদানী ফকির প্রধান এবং বেসরকারি স্যাটেলাইট টেলিভিশন জিটিভি ও সারাবাংলা ডট নেট পত্রিকার প্রধান সম্পাদক সৈয়দ ইশতিয়াক রেজা ‘গেস্ট অব অনার’ হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. গোলাম সামদানী ফকির বলেন, সাংবাদিকতা নিঃসন্দেহে চ্যালেঞ্জিং পেশা। তবে এর ভেতরেও সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জটি হলো নৈতিকতা রক্ষা করা। সাংবাদিকরা হলেন সমাজের চোখ, তাদের মাধ্যমেই দেশ এমনকি গোটা বিশ্ব সব ধরণের পরিস্থিতি সম্পর্কে জানতে পারে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সৈয়দ ইশতিয়াক রেজা বলেন, গত দুই দশক ধরে সাংবাদিকতায় বড় ধরণের পরিবর্তন এসেছে। এটা শুধু বাংলাদেশে নয়, গোটা বিশ্বে। যুক্তরাষ্ট্রের সাংবাদিকতাকে যেখানে আদর্শ মনে করা হত, সেখানেও আজ নানামুখী চ্যালেঞ্জ। কথায় কথায় সে দেশের প্রেসিডেন্ট আজ সাংবাদিকদের গালি দেন। তিনি বলেন, সমাজ ও রাষ্ট্রের সব স্তরে ঘুণ ধরলে সাংবাদিকতায় কেন নয়? তবে আমাদের পরিবর্তনের জন্য কাজ করতে হবে। এ সময় তিনি ইউএন, ইউরোপীয় ইউনিয়ন, ওয়ার্ল্ড ব্যাংকে চাকরি করার পরও সাংবাদিকতায় ফিরে আসার গল্প শেয়ার করেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, শিক্ষার্থীদের শুধু একাডেমিক জ্ঞান অর্জন করলে চলবে না, একই সঙ্গে তাকে নৈতিকবোধসম্পন্ন ও সমাজের প্রতি দায়বদ্ধ হতে হবে। তিনি বলেন, গ্রিন ইউনিভার্সিটি সব সময়ই মানসম্মত শিক্ষাদানে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। এখানকার সিলেবাস যেমন আধুনিক, তেমনি শিক্ষকরাও প্রশিক্ষিত। কেননা গ্রিন বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগদানের পরই একজন শিক্ষককে চার মাসব্যাপী প্রশিক্ষণ নিতে হয়। সমাজ ও রাষ্ট্রকে সেবা দিতে শিক্ষার্থীদের সত্যিকারের জ্ঞানার্জনের ওপরও গুরুত্বারোপ করেন কোষাধ্যক্ষ ও ছাত্রবিষয়ক পরিচালক মো. শহীদ উল্লাহ।

নবীন বরণ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে আরও বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. গোলাম আহমেদ ফারুকী প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন বিভাগের শিক্ষক জাকিয়া জাহান মুক্তা।

 


ঢাকা, সোমবার, ফেব্রুয়ারী ১৭, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // রি সু এই লেখাটি ২৯৭ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন