সর্বশেষ
সোমবার ১৫ই অগ্রহায়ণ ১৪২৮ | ২৯ নভেম্বর ২০২১

আজ অভিনেত্রী অপর্ণার বিয়ে

বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ১০, ২০২০

28.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

দুই বাংলার টিভি পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী অপর্ণা ঘোষণা অবশেষে আজ বৃহস্পতিবার বিয়ের পিঁড়িতে বসতে চলেছেন। অপর্ণার বর সত্রাজিৎ দত্ত পেশায় আইটি ইঞ্জিনিয়ার। জাপানের এয়ারবাসে কর্মরত রয়েছেন তিনি। সনাতন ধর্মীয় রীতি অনুসারে আজ চট্টগ্রামের আগ্রাবাদের একটি মন্দিরে সত্রাজিৎ দত্তের সঙ্গে সাতপাকে বাঁধা পড়বেন তিনি। সেখানেই বিয়ের আনুষ্ঠানিকতার আয়োজন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন অপর্ণা ঘোষ।

করোনা সংকটের মধ্যে এক বন্ধুর মাধ্যমে সত্রাজিতের সঙ্গে অপর্ণার পরিচয়। তারপর দুজনের মধ্যে যোগাযোগ স্থাপন হয়। চলতে থাকে কথোপকথন। সময়ের সঙ্গে পরস্পরের মধ্যে বন্ধুত্ব ও ভালো লাগা তৈরি হয়। পরে জানতে পারেন, সত্রাজিতের বাবা অপর্ণার বাবার ভালো বন্ধু। এরপর দুই পরিবার মিলে বিয়ের কথা পাকা করেন। আগামী মে মাসে বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হবে। তখন শোবিজ অঙ্গনের বন্ধু-সহকর্মীদের আমন্ত্রণ জানাবেন বলে জানান অপর্ণা ঘোষ। 

এর আগে গত (৭ ডিসেম্বর) বন্দরনগরী চট্টগ্রামের একটি রেস্তোরাঁয় দুই পরিবারের সদস্যদের উপস্থিতিতে আশীর্বাদ অনুষ্ঠান সেরেছেন তারা।

অপর্ণা ঘোষের জন্ম চট্টগ্রামের রাঙ্গামাটিতে। শৈশব কেটেছে রাঙামাটি ও বন্দরনগরী চট্টগ্রামে। স্কুলের পাট শেষ হওয়ার পর নাটকের দল নান্দিকারে যোগ দেন তিনি। তার বাবার হাতে গড়া দলের মহড়া প্রায় সময়ই নিজেদের বাসায় হতো। ২০০৩ সালে অপর্ণা প্রথম মঞ্চ অভিনয় করেন। এস এম সোলায়মানের ‘কোর্ট মার্শাল’ নাটকে প্রথম অভিনয় করেন তিনি।

২০০৬ সালে লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার প্রতিযোগিতায় সেরা চারের একজন নির্বাচিত হন অপর্ণা ঘোষ। এরপর নিয়মিত হয়ে ওঠেন টেলিভিশন ও বিজ্ঞাপনের পর্দায়। ছোটপর্দার পাশাপাশি বড় পর্দায়ও সরব অপর্ণা। অভিনয়ের জন্য পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার।

তার প্রথম অভিনয় ছিল ‘তবুও ভালোবাসি’ নাটকে। এরপর আর পিছু ফিরে তাকাতে হয়নি। টিভি নাটক, মঞ্চ, মডেলিং, চলচ্চিত্র, উপস্থাপনাসহ বিনোদন জগতের প্রায় সব ক্ষেত্রেই সরব রয়েছেন এখনো।

তার অভিনীত অন্যতম সিনেমার মধ্যে রয়েছে মোস্তফা সরয়ার ফারুকী পরিচালিত ‘থার্ড পারসন সিঙ্গুলার নাম্বার’, ‘মেঘমল্লার’, ‘মৃত্তিকা মায়া’, ‘সুতপার ঠিকানা’, ‘ভুবন মাঝি’, ‘গণ্ডি’ প্রভৃতি। ২০১৩ সালে ‘মৃত্তিকা মায়া’ চলচ্চিত্রের জন্য শ্রেষ্ঠ পার্শ্বচরিত্রে অভিনেত্রীর ক্যাটাগরিতে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন তিনি।অপর্ণা অভিনীত নাটকের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- ‘রূপনগর’, ‘জীবনের ছোট ছোট ঢেউ’, ‘আজ রবিবার’, ‘কোথাও কেউ নেই’, ‘হাউসফুল’, ‘ঠুয়া’, ‘৪২০’, ‘বন্ধন’, ‘ভালোবাসি তাই ভালোবেসে যাই’, ‘ঠেলাগাড়ি’ প্রভৃতি।


ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ১০, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // এস বি এই লেখাটি ১৬০৪ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন