সর্বশেষ
রবিবার ৮ই আশ্বিন ১৪২৫ | ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮

ঘর সাজাতে সাঁঝবাতি

রবিবার, জুলাই ৩১, ২০১৬

858529360_1469977586.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
অন্ধকারে ঘরে আলোর প্রয়োজনে কিংবা উৎসবে ঘর আলোকিত করতে মোমবাতির প্রয়োজন পড়ে। ঘরের শোভা বাড়াতেও মোমবাতির জুড়ি নেই।

কিছু মানুষ আছে যারা খুব শৌখিন, ঘর সাজিয়ে গুছিয়ে রাখতে খুব পছন্দ করেন। তাদের জন্য মোম হতে পারে ঘর সাজিয়ে রাখার দামি এক উপকরণ। খুব সাধারণ অল্প দামি জিনিস দিয়ে আপনার ঘরে আনতে পারেন শৈল্পিকতার ছোঁয়া।

আজকাল বাজারে নানারকম শৌখিন মোম পাওয়া যায়। এসব মোম দিয়ে অনায়াসে আপনার ঘর সাজাতে পারেন। বিশেষ অনুষ্ঠান উপলক্ষে মোম জ্বালিয়ে ভিন্নভাবে উপস্থাপন করতে পারেন আপনার চেনা-পরিচিত বাড়ির ইন্টেরিয়রকে। বিভিন্ন আকার ও বাহারি রঙের মোমবাতি পাওয়া যায় বাজারে। এসব ব্যবহার করতে হয় যত্নসহকারে।

সাধারণ এক রঙা লম্বা মোমের নকশায় এসেছে ভিন্নতা। আজকাল এক রঙা মোমের পাশাপাশি লম্বা মোমে বিভিন্ন রঙ ব্যবহার করে বাড়তি নকশা করা হচ্ছে। এ ছাড়া গোলাপ, সূর্যমুখীসহ নানা রকম ফুলের আকৃতির মোমের পাশাপাশি স্টার, ফলের আকৃতি, হার্টশেপ রাউন্ড শেপসহ বিভিন্ন নকশাদার মোম তৈরি হচ্ছে, যা অন্ধকার দূর করার জন্য নয় বরং ঘর সাজানোর উপকরণ হিসেবে ব্যবহার হয়।

কী উদ্দেশ্যে মোমবাতি ব্যবহার করবেন তা আগে ঠিক করে নিন। খাবার টেবিলে যে মোমবাতি ভালো লাগবে, সেই মোমবাতি ঘর সাজাতে ভালো লাগবে না। আজকাল ঘর সাজানোতে সুগন্ধি মোমবাতির ব্যবহার দেখা যায়। এসব মোমবাতি ব্যবহারের সময় বিশেষ কিছু নিয়ম মেনে চলা দরকার। যেমন ডিনার টেবিলে অ্যারোমাযুক্ত মোমবাতি খাবারের গন্ধের সাথে মিলেমিশে যেতে পারে। তাই ডিনার টেবিলের জন্য সুগন্ধির পরিবর্তে বাজারে আলাদা কিছু মোমবাতি পাওয়া যায়। যেমন- মাল্টিক্যান্ডেল হোল্ডার ফুডগ্রেড প্যারাফিন ওয়াক্সের মোমবাতি ব্যবহার করতে পারেন। সুন্দর আবহ তৈরিতে ল্যাভেন্ডার বা হানিসেন্টেড অ্যারোমা থেরাপি ক্যান্ডেল আদর্শ। বসার ঘরে কিংবা শোওয়ার ঘরে এটি ব্যবহার করতে পারেন। মোমবাতির আকারের ওপর নির্ভর করে কোন উৎসবে কোন মোমবাতি ব্যবহারের উপযুক্ত।

ঢাকা, রবিবার, জুলাই ৩১, ২০১৬ (বিডিলাইভ২৪) // এই লেখাটি ৬৮২ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন