bdlive24

আসুন এগিয়ে আসি বন্যা কবলিত মানুষের সাহায্যে

শুক্রবার আগস্ট ১৮, ২০১৭, ০৬:৫৭ পিএম.


আসুন এগিয়ে আসি বন্যা কবলিত মানুষের সাহায্যে

বিডিলাইভ রিপোর্ট: আমার মায়ের কোন মেয়ে ছিল না, তাই অনেক আপসোস, তবে এখন আবার তার অনেক নাতনি। আমার মায়ের সাথে তার নাতনিদের সম্পর্ক অনেক গভীর। একদিন নাতনিদের ছাড়া নাকি থাকতে পারেনা, আমার মায়ের মতে "মূলধনের চেয়ে নাকি সুদের মায়া বেশি"। আজকে যখন আমাদের উত্তরাঞ্চলের মানুষ বন্যা কবলিত তখন দেখলাম, আমরা যারা বাইরে (কানাডাতে) আছি তাদের কি আকুলতা, সেই বন্যা কবলিত মানুষের প্রতি, সাহায্যের জন্য কি ব্যাকুলতা, মনে হয় পারলে নিজে বাংলাদেশে গিয়ে নেমে পড়তো সাহায্যের জন্য।

কে বলে যে আমরা বাঙ্গালীরা একত্র হতে পারিনা, কে বলে আমরা সাহায্য করিনা। আমরা যে একত্র হতে পারি, তা আমরা অনেক অনেক বার প্রমাণ করেছি, এবারো তাই করছি। আমরা যারা জীবিকার তাগিতে বাইরে পরে আছি, আমাদের অনেকের মন আসলে পরে থাকে বাংলাদেশে। আমাদের সকলের যে নাড়ি পোঁতা আছে বাংলাদেশে। তাই বাংলাদেশে কিছু হলেই যে আমরা সবাই উদ্বিগ্ন হয়ে পড়ি, ঝাঁপিয়ে পড়ি সাহায্যের জন্য, এটা কিন্ত তাই প্রমাণ করে। কেউ বলেনি বন্যা কবলিত মানুষকে সাহায্যের জন্য, কিন্ত আমরা সবাই দেখি উদ্বিগ্ন বাংলাদেশের বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে। নিজেকে এই নিয়ে অনেক সময় গর্ববোধ হয়, এমন একটা সময়ে এমন কিছু মানুষের সঙ্গে থাকতে পেরে এবং মানুষের এমন মন মানসিকতা দেখে অবিভূত হয়ে যাই।

অনেকে প্রবাসীদের স্বার্থপর মনে করে, তারা মনে করে প্রবাসীরা স্বার্থের কারনে নাকি দেশ ছেড়েছে। তবে আমার মতে আসলেই প্রবাসীরা আমরা স্বার্থপর। স্বার্থপর না হলে কি, এক দেশে থেকে, খেয়ে কেন বাংলাদেশের জন্য আমাদের মন কাঁদবে, কেন আমাদের বাংলাদেশে কিছু হলে সবাই ঝাঁপিয়ে পড়বে সাহায্যের জন্য যেকোনো সংকটময় সময়ে। এটা আসলেই তো মূলধনের চেয়ে সুদের মায়া বেশির মত।

আমার মায়ের মতে, তিনি যখন তার নাতনিদের নাকি বেশি আদর স্নেহ করবেন, সেটাতো তার ছেলে মেয়েদের এবং তাদের বাচ্চাদের এক সাথে ভালোবাসার সমতুল্য হবে, অর্থাৎ এক ঢিলে দুই পাখি মারার মত অবস্থা, কারন আমাদের ছেলে মেয়েরাই তো আবার আমাদের ভালোবাসা এবং সবকিছু, ফলে এর মাধ্যমে ছেলে মেয়েদের কেও ভালোবাসা এবং আদর স্নেহ দেয়া হয়ে গেল।

কয়েকদিন ধরে শুনছি, ১৯৮৮ সালের পর এই প্রথম উত্তরাঞ্চলের মানুষ এই ধরনের বন্যার কবলে পড়েছেন। কল্পনা করুন তো, আমরা শুধুমাত্র জানছি বা শুনছি সেই সব এলাকার খবর যেখানে আধুনিকতার কিছুটা ছোঁওয়া আছে।

আপনি ভাবতেই পারবেন না, উত্তরাঞ্চলে এমন কিছু এলাকা আছে যেখানে কোনদিনও খবর পৌঁছাবেনা, আপনিও জানবেন না সেখানে কি হচ্ছে, কিভাবে তারা দিন কাটাচ্ছে, একটা ভিডিওতে দেখলাম, একটা বাচ্চা বন্যায় ভেসে যাচ্ছে, আর তাকে উদ্ধারের জন্য সবার কি আপ্রান চেষ্টা। আর মায়ের আহাজারি দেখে তো চোখের পানি আটকাতে কেউ পারবেনা বলে মনে করি। বন্যা কবলিত অনেক ছবি শেয়ার হচ্ছে, কেউ বলছে এর মধ্যে কিছু ছবি ফটোশপ করা, তবে ফটোশপ করা আর সত্যি যাই হোক, মানুষের বর্তমান অবস্থা যে অনেক খারাপ তাতে কারও সন্দেহ নাই। অনেকেই সাহায্যের জন্য হাত বাড়িয়ে দিয়েছে, কেউ ব্যক্তিগতভাবে আবার কেউ কোন নিদিষ্ট ব্যানারে সাহায্যের জন্য হাত বাড়িয়ে দিয়েছে।

এমন অনেক গ্রুপ এর মধ্যে BCCB এর কার্যক্রম অবশ্যই পরীক্ষিত, এখানে সন্দেহ তৈরি হওয়ার কোন অবকাশ নাই। যেকোনো সংকটময় সময়ে BCCB ভূমিকা অতুলনীয়। আমার এক শ্রদ্ধেয় বড় ভাই ( BZaman Mukul ), তিনি BCCB সম্পর্কে একটা কথা সব সময় বলেন" দীর্ঘ এক বছর ধরে সূক্ষ্ম পর্যবেক্ষণের পরই আমি BCCB সাথে যুক্ত হয়েছি। সেই একইভাবে আমি বলতে পারি স্বচ্ছতা, বিশুদ্ধতা, আন্তরিকতা ইত্যাদির প্রমাণ দিয়েই BCCB আজ এই পর্যায়ে। আর সবই সম্ভব হয়েছে এই গ্রুপ এর সকলের আন্তরিকতা এবং দক্ষ কার্যক্রম পরিচালনার মাধ্যমে।

আপনার দান এর প্রকৃত ভুক্তভোগীদের কাছে যাবে তাতে সন্দেহের কোন অবকাশ নাই। আমার এক প্রবাসী বাংলাদেশী আপার সূত্র ধরে বলতে চাই, যারা আজকে বন্যা আক্রান্ত, তারা তো আমাদেরই কেউ আপনজন, কারও ভাই, কারও বোন বা কারও আত্মীয়। আমরা নিজেরাও কিন্ত আজ ঐ অবস্থানে থাকতে পারতাম, আজকে তাদের সাহায্যের প্রয়োজন।

সামনে ঈদ, এই ঈদ এর মহিমায় উজ্জবিত হয়ে আসুন আমরা সবাই সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসি যার যা সামর্থ্য অনুযায়ী। আপনার এই সামান্য সাহায্য অনেক বন্যা কবলিত মানুষের উপকারে আসবে এবং তাদের মুখে একটু হাসি বয়ে আনবে আর সেটা নিশ্চিত করবে BCCB।

১। আপনার দেয়া এই দান BCCB আগের অনেক বারের মতই সূক্ষ্মভাবে সংগ্রহ, সরবরাহ এবং বিতরণ করবেন এবং আপনাদের সবাইকে তা অবগত করবেন।

২। আপনাকে BCCB আপনার দেয়া দান এর পুঙ্খানুপুঙ্খ হিসাব দিতে কিভাবে সাহায্য করবেনঃ  (আপনি এই লিঙ্কে

https://www.gofundme.com/bccbfloodrelief2017/ 
  

গিয়ে আপনার পছন্দমত যতটুকু পারেন সাহায্য করুন, আপনাকে কিছু মানি ট্র্যান্সফার ফি দেয়া লাগতে পারে, যা খুবই অল্প। আপনি ইমেইল এর মাধ্যমে আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট থেকে সরাসরি ট্রান্সফার করতে পারেন)

৩। আপনি যদি ব্যাংক ডিপোজিট করতে চান, তাহলে আমাদের জানালে আপনাকে বিস্তারিত ইনফরমেশন জানানো হবে

৪। আপনি চাইলে এর সাথে যুক্ত যে কাউকেই হাতে হাতে টাকা দিতে পারেন।

৫। BCCB ক্রিকেট ফাইনাল ম্যাচ এর দিন একটা বুথ খোলা হবে, আপনারা চাইলে সরাসরি সেখানে দান করতে পারেন। আপনারা যদি প্রথম অপশন বাদে অন্য কোন অপশন এ দান করতে চান, তাহলে দয়া করে Arif Chowdhury ভাইকে ইমেইল এর মাধ্যমে জানাবেন (inform.bccb@gmail.com) এটা স্বচ্ছতা এবং কনফার্মেশনের  জন্য।

আপনাদের সবাইকে এই সাহায্যের জন্য অগ্রিম শুভেচ্ছা। ভালো থাকবেন এবং আমরা সবাই সবার জন্য দোওয়া করবো। আসুন আমরা আবার দেখিয়ে দেই, আসলে আমরা বাংলাদেশী কানাডিয়ান, কানাডিয়ান বাংলাদেশী।

ধন্যবাদ,
সাইফুল
টরেন্টো, কানাডা থেকে


ঢাকা, আগস্ট ১৮(বিডিলাইভ২৪)// পি ডি
 
        print



মোবাইল থেকে অ্যাপস ডাউনলোড করুন
android iphone windows




bdlive24.com © 2010-2014
Powered By: NRB Investment Ltd.