সর্বশেষ
বৃহঃস্পতিবার ৪ঠা শ্রাবণ ১৪২৫ | ১৯ জুলাই ২০১৮

নিজের অপহরণের নাটকে কারাগারে তরুণী

শুক্রবার, নভেম্বর ১০, ২০১৭

852227664_1510323494.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :
নিজের অপহরণের ভুয়া গল্প ফেঁদে শেষে পুলিশের জালেই ধরা দিলেন ২৫ বছর বয়সী তরুণী। সাজা হিসেবে মিলল ছয় মাসের জেল এবং পাঁচ হাজার ইউরো (বাংলাদেশী মুদ্রায় প্রায় ৪ লক্ষ টাকা) জরিমানা।

ঘটনাটি ঘটেছে ফ্রান্সের মেন্ডে শহরে। স্যান্ডি গিলার্ড নামে ওই তরুণী বিবাহ বিচ্ছেদের পর ওই শহরেরই এক তরুণের প্রেমে পড়েন। তারা একই সঙ্গে থাকতেন। তবে বেশ কিছুদিন ধরেই সঙ্গীর সঙ্গে নানা সমস্যা চলছিল স্যান্ডির। তার বয়ফ্রেন্ডের কথায়, তৃতীয় কোনও এক ব্যক্তির সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েছিলেন স্যান্ডি। হঠাৎই একদিন, তার বয়ফ্রেন্ডকে মেসেজ করে জানান, তাকে অপহরণ করা হয়েছে। একটি কালো গাড়িতে তুলে অপহরণকারীরা তাকে কোনও একটি অ়জ্ঞাত স্থানে নিয়ে গিয়েছে। ঘটনাটি পুলিশকে জানান ওই তরুণ।

এর পরের ঘটনা আরও চমকপ্রদ। তরুণীকে খুঁজে পেতে নাকাল হয় পুলিশ। শেষে ৫০ জনের একটি সেনা দল মোতায়েন করা হয়। হেলিকপ্টারে চেপে গোটা এলাকা তল্লাশি চালায় সেনা। খোঁজ চালানো হয় আশপাশের শহরগুলিতেও। শেষে রহস্যের সমাধান করেন স্যান্ডি নিজেই। প্রকাশ্যে এসে তিনি জানান, অপহরণকারীরা তাকে ছেড়ে দিয়েছে। তার কথায় অসঙ্গতি থাকায় সন্দেহ হয় পুলিশের। স্যান্ডিকে গ্রেফতার করে করে পুলিশ। জেরায় নিজের অপরাধ স্বীকার করেন তরণী। তিনি জানান, বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে ঝামেলার কারণে তাদের মধ্যে ছাড়াছাড়ি হয়ে গিয়েছিল। ফের একসঙ্গে থাকবেন বলেই এই কাণ্ড ঘটিয়েছেন তিনি।

গতকাল বৃহস্পতিবার স্যান্ডিকে ফরাসী আদালতে তোলা হয়। এই ভুয়া নাটক এবং পুলিশ প্রশাসনকে নাকাল করার অপরাধে তাকে ৬ মাসের কারাদণ্ড দেয় আদালত।

ঢাকা, শুক্রবার, নভেম্বর ১০, ২০১৭ (বিডিলাইভ২৪) // জেড ইউ এই লেখাটি ১৩২ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন