সর্বশেষ
মঙ্গলবার ২রা মাঘ ১৪২৪ | ১৬ জানুয়ারি ২০১৮

একই পরিবারের পাঁচজন অজ্ঞানপার্টির খপ্পড়ে

রবিবার ১২ই নভেম্বর ২০১৭

1560487423_1510496164.jpg
বিডিলাইভ রিপোর্ট :
পুরান ঢাকার লালবাগ থানার আজিমপুরে একই পরিবারের পাঁচজনকে চেতনানাশক দিয়ে অচেতন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এরা হলেন, গৃহকর্ত্রী মনিরা বেগম (৩৫), তার দুই সন্তান মাহির (৫) ও মোনতাহিনা এবং দুই গৃহকর্মী পাপিয়া আক্তার (৩৫) ও কলি আক্তার (২২)।

আজ রোববার বিকেলে আজিমপুরে সাততলা ভবনের পঞ্চম তলার একটি বাসায় এ ঘটনা ঘটে। তাদেরকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে।

অচেতন মনিরা বেগমের স্বামী অ্যাডভোকেট মতিউর রহমান বলেন, আজ বিকেল তিনটার সময়ে ভাত তরকারীর সাথে সাদা পাউডারের মত মিশিয়ে এদের খাওয়ানো হয়। পরে সবাই অচেতন হয়ে পড়লেও আমার স্ত্রীর কিছুটা জ্ঞান ছিল। সে আমাকে বিষয়টি ফোনে জানানোর চেষ্টা করে। এরপর আমি দ্রুত আদালত থেকে বাসায় এসে তাদের সবাইকে অচেতন অবস্থায় পাই। পরে বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে তাদেরকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসি।
 
অ্যাডভোকেট মতিউর রহমানের ভাষ্যমতে, গৃহকর্মী কলি দুইদিন আগে তাদের পাশের বাড়ির এক নিরাপত্তাকর্মীর মাধ্যমে তার বাসায় কাজ নেয়। ওই নিরাপত্তাকর্মীর সঙ্গে তার সম্পর্ক থাকতে পারে এবং তারা দুইজনে মিলেই এই কাজ করতে পারে। তবে তার বাসা থেকে টাকা পয়সা গহনাগাঁটি কিছু খোয়া গেছে কিনা এমন প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, এই মুহূর্তে আমি কিছু বলতে পারবনা। আমার স্ত্রী সন্তানকে অসুস্থ দেখতে পেয়ে দ্রুত তাদেরকে হাসপাতালে নিয়ে আসি। এরথেকে বেশি কিছু আমার জানা নেই। তবে অভিযুক্ত গৃহকর্মী কলি অচেতন হলেও তার অবস্থা আশঙ্কামুক্ত।

জানতে চাইলে লালবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুজ্জামান বলেন, শুনেছি আজিমপুরে একটি পরিবারের সদস্যদের খাবারে বিষক্রিয়া হয়েছে। সেখানে আমাদের একজন কর্মকর্তাকে পাঠিয়েছি। ওনি বিষয়টি দেখছেন।

ঢাকা, রবিবার ১২ই নভেম্বর ২০১৭ (বিডিলাইভ২৪) // এস এইচ এই লেখাটি 6 বার পড়া হয়েছে