সর্বশেষ
মঙ্গলবার ১৯শে আশ্বিন ১৪২৯ | ০৪ অক্টোবর ২০২২

দেশটা মৃত্যুপুরী হয়ে যাক আমি চাই না: শ্রীলেখা

বুধবার, মার্চ ২৫, ২০২০

o.jpg
বিডিলাইভ ডেস্ক :

করোনার করাল গ্রাসে বিশ্ব। প্রতিনিয়ত বেড়ে চলেছে আক্রান্তের ও মৃতের সংখ্যা। এমন অবস্থায় বিভিন্ন দেশের অনেক শোবিজ তারকার মতো স্বেচ্ছায় গৃহবন্দি রয়েছেন কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র।

কিন্তু এখানকার জনতার উল্লাসে ত্রস্ত তিনি। গত রোববার বিকালে থালা-বাটি বাজানোর ঘটনায় স্তম্ভিত নায়িকা। তিনি যে কতটা আতঙ্কে রয়েছেন তার ছাপ স্পষ্ট তার মুখে। সমপ্রতি একটি ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, জানি না, ভবিষ্যৎ কী! আগামী দিনের আঁচ কেউ হয়তো এখনো করতে পারছেন না। এটা কোনো উৎসব নয়। দয়া করে বাড়িতে থাকুন। অন্যসব বন্ধ করে দিন।

তিনি আরো বলেন, আমার বাড়িতে ৭০ বছরের বাবা আছেন। আমি ভীষণ চিন্তিত। আমার মেয়ে আছে। ওর সারাজীবন পড়ে আছে। তবে যারা আহাম্মকের মতো রোববার রাস্তায় নেমে নাচানাচি করলেন তাদের ওপর ক্ষুব্ধ আমি। এই লড়াইটা সকলকে একসঙ্গে লড়তে হবে। নিজে ভালো থাকুন। বাকিদের ভালো রাখুন। দেশটা মৃত্যুপুরী হয়ে যাক তা আমি চাই না। লকডাউন এরপরে বিনা কাজে লোকে রাস্তায় বেরুচ্ছে, এটা খুবই চিন্তাজনক। আমার মতো অনেকেই আছেন যারা পশুপ্রেমী। আপনাদের বেঁচে যাওয়া খাবার থেকে ওদেরও একটু দিন। নইলে ওরা স্রেফ মরে যাবে না খেতে পেয়ে। এটুকুই আমার আর্জি। একটু দায়িত্বশীল হন। সাবধানে থাকুন। বেঁচে থাকলে আবার দেখা হবে।


ঢাকা, বুধবার, মার্চ ২৫, ২০২০ (বিডিলাইভ২৪) // জে এস এই লেখাটি ১৭০৯ বার পড়া হয়েছে


মোবাইল থেকে খবর পড়তে অ্যাপস ডাউনলোড করুন